ইন্ডিয়া জোট না হ‌ওয়ায় লোকসভায় বি জে পির লাভ

। হাবেলী ডিজিটাল ডেস্ক।আগরতলা।২৬ নভেম্বর। আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে বিরোধী দলগুলো জোটবদ্ধভাবে লড়বে না। ইন্ডিয়া জোট গঠন না হওয়ায় শাসকদল বি জে পি বাড়তি সুবিধা পাবে।
কেন্দ্রীয় সরকার বি জে পি কে আটকাতে বিরোদলগুলো জাতীয়স্তরে ইন্ডিয়া জোট গঠন করেছে। এই জোটে কংগ্রেস,সি পি আই এম সহ বামপন্থী দলগুলো, এবং অন্যান্য বিরোধী দল গুলো রয়েছে ।বি জে পি কে পরাস্ত করতে ইন্ডিয়া জোটবদ্ধভাবে প্রার্থী দেয়ার কথা ঘোষণা করেছিল।
কিন্তু ত্রিপুরাতে লোকসভা নির্বাচনে ইন্ডিয়া জোট গঠন করতে সি পি আই এম রাজি নয়।সি পি আই এম পলিটব্যুরোর সদস্য তথা প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার সম্প্রতি ঘোষণা করেছেন লোকসভা নির্বাচনে একক প্রার্থী দেয়ার কথা ঘোষণা করেছেন ।
এদিকে গতকাল রাজ্য কংগ্রেস সভাপতি আশিষ কুমার সাহা ও লোকসভা নির্বাচনে একক প্রার্থী দেয়ার কথা ঘোষণা করেছেন।
উল্লেখ্য গত বিধানসভা নির্বাচনে রাজ্যে সি পি আই এম এবং কংগ্রেস জোট গঠন করেছিল। জোট গঠন করে বি জে পি বিরুদ্ধে একক ভাবে প্রার্থী দিয়েছিল।রাজ্য বিধানসভা নির্বাচনে জনগণ এই জোট কে মেনে নেয় নি।
বিধানসভা উপ নির্বাচনের সময় রাজ্যে কংগ্রেস ও সি পি আই এম জোট ভেঙে যায়। সেই থেকে শুরু হয় জোট গঠন করার অবনতি।তার প্রভাব গিয়ে পড়ছে লোকসভা নির্বাচনে।

অপরদিকে তিপরা মথা দল ও লোকসভা নির্বাচনে একক ভাবে প্রার্থী দেয়ার কথা আগাম ঘোষণা করেছে।
লোকসভা নির্বাচনে রাজ্যের বিরোধী দল গুলো এককভাবে নির্বাচনে লড়াই করার ফলে বি জে পি বাড়তি সুবিধা পাবে বলে অভিজ্ঞ মহলের ধারণা।
গত বিধানসভা নির্বাচনের সময় শাসকদল বি জে পি ৪০ শতাংশ মত ভোট পেয়ে সামান্য আসন নিয়ে রাজ্য বিধানসভায় পুনরায় ফিরে আসে। বিরোধী দলগুলোর পক্ষে বাকী ভোট চলে যায়।
তিপরা মথা দল,সি পি আই এম এবং কংগ্রেস পৃথক পৃথক ভাবে নির্বাচনে প্রার্থী দেন। ভোট ভাগাভাগি হয়। বি জে পি লোকসভা নির্বাচনে দুই টি আসন নিজেদের দিকে ধরে রাখতে সক্ষম হবে বলে অভিজ্ঞ মহলের অভিমত।
কিন্তু বিরোধী দল গুলো ঐক্যবদ্ধ ভাবে একজন প্রার্থী দেন। সেই ক্ষেত্রে বি জে পি প্রার্থীকে পুনরায় জয়ী করতে অনেক কাঠখড় পোড়াতে হবে রাজনৈতিক অভিজ্ঞ মহলের অভিমত।